fbpx

৭২ ঘণ্টার মধ্যে নিয়োগপত্র না পেলে আমরণ অনশন, বৃহত্তর আন্দোলনের ডাক TET চাকরিপ্রার্থীদের

করুণাময়ী মোড়ে টেট-চাকরিপ্রার্থীদের অবস্থান বদলাল আমরণ অনশনে। এমনকী ধর্নায় অসুস্থ হয়েছেন বেশ কয়েকজন। তাদের ইতিমধ্যেই নিয়ে যাওয়া হয়েছে হাসপাতালে। তবে আন্দোলনকারীদের দাবি নিয়োগে মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ করুন। এই সমস্যার দ্রুত সমাধান না হলে আরও বড় আন্দোলনের হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন তারা। নিয়োগপত্র না পাওয়া পর্যন্ত অনশনের হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। তবে পুলিসও অবস্থান তুলতে বদ্ধ পরিকর। অবস্থান না তুললে ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও জানিয়েছেন। মাইকিং করে আন্দোলনকারীদের উঠে যাওয়ার অনুরোধ করছে পুলিস।

প্রসঙ্গত, রাতভর করুণাময়ী মোড়ে ধর্নায় বসে রয়েছেন ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণরা। অবস্থান তুলে নিতে পুলিস মাইকিং করলেও কর্ণপাতে রাজি নন আন্দোলনকারীরা। বাহাত্তর ঘণ্টার মধ্যে ঘটনাস্থলে গিয়ে নিয়োগপত্র দিতে হবে। না হলে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে অবস্থানের, হুঁশিয়ারি টেট উত্তীর্ণদের।করুণাময়ীতে আন্দোলনকারী টেট উত্তীর্ণদের মধ্যে বেশ কয়েকজন অসুস্থ হয়ে পড়লে অবশেষে তাদের নিয়ে যাওয়া হয় বিধাননগর হাসপাতালে।

ঠিক কী দাবি টেট উত্তীর্ণ চাকরিপ্রার্থীদের?‌ এই চাকরীপ্রার্থীদের দাবি, নয়া নিয়োগ প্রক্রিয়ায় তাঁরা অংশ নিতে চান না। তাঁদের সরাসরি নিয়োগ করতে হবে। কারণ তাঁরা প্রত্যেকেই ২০১৪ সালে টেট পাশ করেছেন। এমনকী দু’বার ইন্টারভিউও দিয়েছেন। অথচ তাঁদের হাতে এখনও নিয়োগপত্র আসেনি। সেখানে আগামীকাল বুধবার থেকে নয়া নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু করতে চলেছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ। এই নিয়োগ প্রক্রিয়া বাতিল করে আগে তাঁদের নিয়োগপত্র দিতে হবে।

সোমবার প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের অফিস অভিযানের ডাক দেয় চাকরিপ্রার্থীরা। গতকাল দুপুর ১ টা নাগাদ, কয়েকজন আন্দোলনকারী পর্ষদের দিকে এগোতে গেলে, বাধা দেয় পুলিস। তাদের আটক করে বিধাননগর কমিশনারেটের পুলিস। এরপর, হঠাত্‍ই, করুণাময়ী মেট্রো স্টেশনের সামনে কয়েক হাজার বিক্ষোভকারী জড়ো হয়ে অবস্থানে বসে তারা।  

Source link

Leave a Reply